বাকি ছিল আর মাত্র এক সেমিস্টার! নিউইয়র্ক ইউনিভার্সিটিতে আর একটি সেমিস্টার শেষ করতে পারলেই হয়তো ‘ড্রপ আউট’ তকমা পড়ত না জ্যাক ডর্সির গায়ে। কে জানে, তাতে হয়তো তাঁর পুরো জীবনটাই বদলে যেত। হয়তো টুইটার প্রতিষ্ঠা করা হতো না! হয়তো তিনি প্রায় ৩৭০ কোটি ডলারের মালিক হতেন না!

জনপ্রিয় মাইক্রোব্লগিং সাইট টুইটারের সহপ্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী জ্যাক ডর্সি। স্কুল-কলেজে আর দশজন শিক্ষার্থীর মতোই পড়ালেখা শেষ করেছিলেন তিনি। খুব ছোটবেলা থেকে প্রোগ্রামিংয়ে ঝোঁক ছিল। মাত্র ১৪ বছর বয়সে তিনি তৈরি করেন ‘ডিসপ্যাচ সফটওয়্যার’, বিভিন্ন পরিবহন সংস্থা এখনো এই ওপেন সোর্স সফটওয়্যারটি ব্যবহার করে।

কলেজ শেষে ইউনিভার্সিটি অব মিসৌরি-রোল্লাতে ভর্তি হন জ্যাক। দুই বছর পড়া শেষে চলে যান নিউইয়র্ক ইউনিভার্সিটিতে। সেখানেও দুই বছর পড়া শেষে বিশ্ববিদ্যালয়কে বিদায় জানান তিনি। মাত্র এক সেমিস্টার শেষ হলেই স্নাতক ডিগ্রি যোগ হতো তাঁর ক্যারিয়ারে। তা না করে তিনি ছুটে যান ক্যালিফোর্নিয়ায়। কারণ তত দিনে তাঁর মাথায় দানা বাঁধতে শুরু করেছে টুইটার তৈরির ভাবনা। তখন ১৯৯৯ সাল, টুইটার প্রতিষ্ঠার স্বপ্ন তখনই বাস্তবায়ন করতে না পারলেও চেষ্টা করে গেছেন নিজের কিছু করার। একদিকে প্রযুক্তি নিয়ে ঘাঁটাঘাঁটি, অন্যদিকে শৌখিন মডেলিংয়েও নাম লিখিয়েছিলেন জ্যাক। জর্জিও আর্মানির পোশাকের মডেলও হয়েছিলেন তিনি। বিভিন্ন প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানে কাজের অভিজ্ঞতা নিয়ে ২০০৬ সালে বিজ স্টোন আর ইভান উইলিয়ামকে নিয়ে টুইটার প্রতিষ্ঠা করেন তিনি। মাঝে টুইটার থেকে বিদায় নিয়েছিলেন। পরে আবার ফিরে আসেন তিনি।

দ্য ভার্জ অবলম্বনে

Facebook Comments

You may also like

বীরগঞ্জে ইট ভাটা মালিকের তান্ডবে নারীসহ ৭ জন হাসপাতালে

আবাদি জমির মাটি কেটে ইট ভাটায় নিয়ে যাওয়ার