আশিক মুন্না | খানসামা উপ স্বাস্থ্য কেন্দ্রে পর্যাপ্ত ওষুধ না থাকায় চরম অসুবিধায় ভুগছে এলাকার সাধারন মানুষজন। উল্লেখ্য যে গত ০১ ডিসেম্বর থেকেই এরকম চলছে।তবে হাসপাতালে যেসকল ওষুধ মজুদ আছে তা দিয়ে তাদের প্রয়োজন মিটছে না। কারন যেসকল ওষুধের চাহিদা এখানে বেশি সেসব ওষুধ নেই এই স্বাস্থ্য কেন্দ্রে।

সাধারন জনগণ জানায় যে, গত ০১ ডিসেম্বর থেকে তারা শুধু আসছে আর চলে যাচ্ছে।কিন্তু ওষুধ পাচ্ছে না। যার ফলে তাদের ভোগান্তিতে পরতে হচ্ছে। তারা ওষুধের বিষয়ে জানতে চাইলে সেখানের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জানান যে, ৭/৮ তারিখের মধ্যে ঠিক হয়ে যাবে।

ওষুধ না থাকার কারন জানতে চাইলে খানসামা উপ স্বাস্থ্য কেন্দ্র দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মাহফুজ আল মামুন সিদ্দিক জানান, “যে এটা সরকারী কাজ।এটা নিয়ে বাড়াবাড়ি করলে তুমি অপদস্থ হবা।”

কেনো অষুধ নেই? এই ব্যাপারে অনেক অনুরোধের পরেও দায়ীত্বে থাকা ব্যক্তির থেকে কোন তথ্য পাওয়া যায়নি। ব্যাপারটা ক্ষতিয়ে দেখার জন্যে বীরগঞ্জ নিউজ ২৪.কম এর পক্ষ থেকে যোগাযোগ করা হয় পাশের উপজেলা বীরগঞ্জের কমিউনিটি হেলথ কেয়ার প্রোভাইডার আল সাউদ সরকারের সাথে।

এ ব্যাপারে তিনি বলেন, “আসলে কেন্দ্রীয় পর্যায় থেকেই এমন অনিয়মিত আর অপর্যাপ্ত মেডিসিন আসে তৃণমূল স্বাস্থ্য কেন্দ্রগুলোতে। একটা উদাহারণ টেনে তিনি বলেন, বিগত দুই বছরে যে পরিমান ওষুধ আমাদের জন্যে বরাদ্দ ছিলো বছর হিসেবে তার অর্ধেকও আমরা হাতে পাই না।”

নিম্ন আয় ও অসহায় মানুষদের শেষ আশ্রয় এই সরকারি স্বাস্থ্য কেন্দ্রগুলো। এগুলোতে যদি নিয়মিত ওষুধ না থাকে তবে কোথায় গিয়ে দাড়াবে এই মানুষগুলো?

Facebook Comments

You may also like

বীরগঞ্জে ইট ভাটা মালিকের তান্ডবে নারীসহ ৭ জন হাসপাতালে

আবাদি জমির মাটি কেটে ইট ভাটায় নিয়ে যাওয়ার