দেশের উত্তরাঞ্চলে আবারো বেড়েছে শীত। রংপুরে আজকের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা আট দশমিক আট ও কুড়িগ্রামে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে নয় দশমিক পাঁচ ডিগ্রি সেলসিয়াস। টানা কনকনে শীতের প্রবাহে স্বাভাবিক জীবনযাত্রা অচল হয়ে পড়েছে কুড়িগ্রামে। গরম কাপড়ের অভাবে কষ্টকর সময় পার করছেন সেখানকার মানুষ। রেহাই পাচ্ছে না গবাদি পশুরাও।

জেলা ত্রাণ ও পূণর্বাসন অফিস জানিয়েছে, এ পর্যন্ত সরকারিভাবে ৬২ হাজার কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। তীব্র শীত ও হিম ঠান্ডার কারণে হাসপাতালগুলোতে বাড়ছে শীতজনিত রোগীর সংখ্যা। ডায়রিয়া, নিউমোনিয়া, শ্বাস কষ্টে আক্রান্ত হচ্ছে শিশু ও বৃদ্ধরা। কৃষি জমিতেও পড়ছে এর বিরূপ প্রভাব। টানা শৈত্যপ্রবাহে বোরো বীজতলা নিয়ে আশংকায় কৃষকরা।

এভাবে আরো কয়েকদিন চলতে থাকলে বীজতলার ব্যাপক ক্ষতির আশঙ্কার কথা জানালেন কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের ভারপ্রাপ্ত উপ-পরিচালক আব্দুর রশীদ। এদিকে, জেলা প্রশাসক আবু ছালেহ মোহাম্মদ ফেরদৌস খান জানান, প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের জন্য শীতবস্ত্র পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

Facebook Comments

You may also like

বীরগঞ্জে ইট ভাটা মালিকের তান্ডবে নারীসহ ৭ জন হাসপাতালে

আবাদি জমির মাটি কেটে ইট ভাটায় নিয়ে যাওয়ার